BdNewsEveryDay.com
Friday, April 19, 2019

মুর্শিদাবাদে ওয়েলফেয়ার পার্টির রোড শোতে ব্যাপক সাড়া

Saturday, April 13, 2019 - 158 hours ago

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: শুক্রবার মুর্শিদাবাদের খড়গ্রামে রোড শো করলো ওয়েলফেয়ার পার্টি অফ ইন্ডিয়া। শুক্রবারের রোড শো তে ব্যাপক জনজোয়ার সৃষ্টি হয়। প্রার্থী ড. এস কিউ আর ইলিয়াসকে বিপুল ভোটে জয়ী করতে ছাত্র যুবদের ঢল নামে রোড শো। খড়গ্রামের শেরপুর, নগর, নাক কাটিয়া গ্রাম সহ প্রায় দশটি গ্রামে রোড শো করেন ওয়েলফেয়ার পার্টির প্রার্থী ড. ইলিয়াস। এদিন প্রার্থী ড. এস কিউ আর ইলিয়াসের সাথে রোড শো তে উপস্থিত ছিলেন পার্টির মুর্শিদাবাদ জেলা সভাপতি মোহাম্মদ খোদাবক্স, মাওলানা আব্দুল সামাদ সহ অন্যান্য ব্লক নেতৃত্ব।

উল্লেখ্য, সংখ্যালঘু অধ্যুষিত জঙ্গিপুর জঙ্গিপুর লোকসভায় ওয়েলফেয়ার পার্টির হয়ে লড়াই করছেন বিসিস্ট বুদ্ধিজীবী, বাবরি মসজিদ এক্সন কমিটির যুগ্ম কনভেনর, অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের কার্যকরী কমিটির সদস্য, উর্দু আফকারে মিল্লি পত্রিকার সম্পাদক তথা পার্টির সর্বভারতীয় সভাপতি ড. এস কিউ আর ইলিয়াস প্রার্থী ঘোষণার পর থেকেই কেন্দ্রীয় সভাপতি কে ভোটে জেতাতে মরিয়া পার্টির কর্মীরা। অন্যান্য প্রার্থীদের মতোই দেওয়াল লিখন, পথসভা মিছিল মিটিং , সোশ্যাল মিডিয়ায় সকলকে পাল্লা দিচ্চেন ওয়েলফেয়ার পার্টিও।

এদিনের পার্টির রোড শোঁ তে জনগন, ছাত্র যুবদের ব্যপক সারা লক্ষ করা যায়। প্রায় দশটিরও বেশি গ্রামে রোড শো শেষে ডব্লিউপিএই প্রার্থী ড. এস কিউ আর ইলিয়াস জানান, রোড শো তে জনগণের বিপুল সাড়াই বলে দিচ্ছে এবার জঙ্গিপুড়ে পরিবর্তন আসছে। দীর্ঘদিনের বঞ্চনার অবসান ঘটাতে ছাত্র যুবদের ঢল নামে। এলাকার ব্যর্থ সাংসদের বিরুদ্ধে এবার জনতার জাগরণ ঘটেছে। বিড়ি শ্রমিক থেকে রাজমিস্ত্রি সকলেই পরিবর্তন চাইছেন।

অন্যদিকে বৃহস্পতিবার সাগরদিঘিতে সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মোটর বাইক র‍্যালী করলো ওয়েলফেয়ার পার্টি অফ ইন্ডিয়া। প্রায় অর্ধশতাধিক গ্রামে প্রচার সেরে বিকেলে রঘুনাথগঞ্জে জনসভা করে দলটি। মহিলা পুরুষ যুবকদের বড় ভিড় ছিল সভায়। ওয়েলফেয়ার পার্টির প্রার্থী ডঃ কাসেম রসূল ইলিয়াস বলেন,’জঙ্গিপুর লোকসভার বঞ্চনার জবাব সংসদেই দিতে হবে। জনগণ জানতে চায়, কোন অপরাধে স্বাধীনতার ৭২ বছর পরেও এখানকার মানুষ শিক্ষা,স্বাস্থ্য, চাকরি থেকে বঞ্চিত। কেন আজও পর্যাপ্ত পরিমাণ রেল নেই। কেন ছেলেমেয়েদের উচ্চ শিক্ষার জন্য অন্য জেলায় যেতে হয়? আর কতদিন এখানকার লোককে শ্রমিক বানিয়ে রাখা হবে? দলের পরিবর্তন নয়, নীতি ও আদর্শের জন্য লড়াই করতে হবে। জঙ্গিপুর লোকসভার উন্নয়নের জন্য এখানকার মানুষকেই এগিয়ে আসতে হবে।’

এদিন বক্তব্য দেন প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি ডাঃ রইসুদ্দিন। তাঁর প্রশ্ন,’কোন অপরাধে মুর্শিদাবাদকে পিছিয়ে রাখা হয়েছে? এখানে কি এতদিন কোনও সাংসদ, বিধায়ক ছিলেন না? এই বঞ্চনার জন্য কংগ্রেস সিপিআইএম,তৃণমূল সবাই দায়ী। রাজনৈতিক দলগুলো দাস বানিয়ে রেখে মানুষকে। ওয়েলফেয়ার পার্টির লড়াই দাসত্ব থেকে মুক্তির লড়াই,প্রকৃত উন্নয়নের জন্য লড়াই।’

এদিন সন্ধ্যার পর কৃষ্ণসাইল এলাকায় দলীয় কর্মীদের নিয়ে প্রচার সারেন কাসেম রসূল ইলিয়াস। তিনি জানান,’মানুষের অভূতপূর্ব সাড়া পাওয়া যাচ্ছে। মানুষ পরিবর্তন চাইছে।’


bdnewseveryday.com © 2017 - 2018