BdNewsEveryDay.com
Tuesday, May 21, 2019

ঢাবি ভিসিকে কৈফিয়ত দিতে হবে : দুদু

Thursday, March 14, 2019 - 838 hours ago

ডাকসু নির্বাচনে অনিয়মের জন্য ঢাবি ভিসিকে কৈফিয়ত দিতে হবে মন্তব্য করে জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু বলেছেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ক্যাস্পাস অভিমুখে সাবেক ছাত্র নেতারা কর্মসূচি দেয়ার চিন্তাভাবনা করছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচন বাতিল করে পুনঃনির্বাচনের জন্য বিভিন্ন সংগঠন ও সাধারণ শিক্ষার্থীদের দাবির সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে বৃহস্পতিবার দুপুরে এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা জানান।

তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় আমাদের স্বপ্নের জায়গা। আপনি (ভিসি) যা কিছু করবেন এটা কিন্তু মেনে নেবো না। আমাদের মধ্যে কথা-বার্তা হচ্ছে। প্রয়োজনে ডাকসুর সাবেক ভিপি-জিএস, সাবেক ছাত্র নেতারা, সারা বাংলাদেশে যে যেখানে ঢাবির সাবেক ছাত্র নেতারা আছেন সবাই আমরা মার্চ করে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের দিকে যাবো। কৈফিয়ত দিতে হবে আপনাকে কেনো এরকম নির্বাচন করলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মান-সন্মানকে নষ্ট করলেন।

জাতীয় প্রেস ক্লাবের আবদুস সালাম হলে জাতীয়তাবাদী নবীন দলের উদ্যোগে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে এই আলোচনা সভা হয়। সংগঠনের সভাপতি হুমায়ুন আহমেদের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সোহেল রানার পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, হাবিবুর রহমান হাবিব, সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, নির্বাহী কমিটির সদস্য নিপুন রায় চৌধুরী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু বলেন, ডাকসু নির্বাচন যেটা হয়ে গেলো এটা যদি নির্বাচন হয় তাহলে বাংলাদেশে আর সত্য বলে কিছু নাই। আমরা একসময় ছাত্র ছিলাম, ডাকসু নির্বাচন করেছি। সেই নির্বাচন দেশবাসী বিশ্ববাসী দেখেছে। ডাকসু নির্বাচন নিয়ে আজকে যারা অনশন করছেন তাদের প্রতি আমাদের পূর্ণ সমর্থন আছে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে বলব, তাদের দাবি মেনে নিন। আপনি মানবেন না কেনো? শুধু বিরোধী ছাত্র সংগঠনগুলো নয়, ছাত্রলীগও ফলাফল ঘোষণার পরে দুপুর পর্যন্ত বলেছে, নির্বাচন ঠিক হয় নাই, নির্বাচন বাতিল করেন। এমন কোনো সংগঠন নেই যারা এই নির্বাচন বাতিল করার কথা বলে নাই।

দেশবাসীকে লড়াই-সংগ্রামের জন্য প্রস্তুতি নেয়ার আহবান জানিয়ে তিনি বলেন, লড়াই ও রক্ত ছাড়া বাংলাদেশের স্বাধীনতা আসে নাই। শুধু আন্দোলন করেছেন সেটা না- লড়াই ও রক্ত। শেখ মুজিবকে জেল থেকে মুক্ত করেছে বাংলাদেশের মানুষ পাকিস্তান আমলে লড়াই ও রক্তের মাধ্যমে।

হাইকোর্ট-সুপ্রিম কোর্ট পাকিস্তানে আমলে শেখ মুজিবকে মুক্তি দেয় নাই। লড়াই ও রক্ত দিয়েই দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। এটা যদি আপনারা মাথায় না নিতে পারেন তাহলে ভুল হয়ে যাবে। আদালতের দিকে তাকিয়ে কোনো লাভ হবে না। এদের যারা নিয়োগ দিয়েছেন তাদের স্বার্থ দেখছে। এগুলো একটু আপনাদের ভাবতে হবে।

সকল


bdnewseveryday.com © 2017 - 2018