BdNewsEveryDay.com
Sunday, March 24, 2019

জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়েছে ৬ শতাংশ : ক্যাব

Saturday, January 12, 2019 - 838 hours ago

২০১৮ সালে জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়েছে ৬ শতাংশ। এমন ব্যয় বাড়ার পেছেন রয়েছে বেশ কিছু খাদ্যপণ্য, যার মধ্যে অন্যতম চাল। এসব তথ্য উঠে এসেছে কনজ্যুমার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ক্যাব) প্রতিবেদনে। ২০১৮ সালের জীবনযাত্রার ব্যয় নিয়ে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করে ক্যাব।

রাজধানীর পনেরোটি খুচরা বাজার ও বিভিন্ন সেবা প্রতিষ্ঠান থেকে ১১৪টি খাদ্যপণ্য, ২২টি নিত্য ব্যবহার্য সামগ্রী ও বিভিন্ন সেবা সার্ভিস থেকে তথ্য নিয়ে ক্যাব তৈরি করেছে জীবনযাত্রার ব্যয় সংক্রান্ত ২০১৮ সালের প্রতিবেদন।

প্রতিবেদনে উঠে এসেছে ২০১৮ সালে জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়েছে ৬ শতাংশ, যা ২০১৭ সালে বেড়েছিলো ৮ দশমিক ৪৪ শতাংশ হারে। ২০১৮ সালে পণ্য ও সেবার দাম বাড়ে ৫ দশমিক ১৯ শতাংশ হারে যা ২০১৭ সালে ছিলো ৭ দশমিক ১৭ শতাংশ।

আগের বছরের তুলনায় ২০১৮ সালে সবধরনের চালের দাম বেড়েছে প্রায় ৯ শতাংশ। সেখানে মাছের দাম বেড়েছে ১৩ দশমিক ৫ শতাংশ হারে। সবজি ও চা পাতার দাম বেড়েছে ৯ শতাংশ আর তরল দুধের দাম বেড়েছে ১০ শতাংশ করে। এছাড়াও ডিম, মাংস ও মুরগির দাম ৮, ৩ ও ২ শতাংশ বেড়েছে। অন্যদিকে এক বছরে সাবানের দাম বেড়েছে ২০ শতাংশ।

তবে এসব পণ্যের মধ্যে চালের দাম বাড়া নিয়ে ক্যাব আলাদাভাবে উদ্বেগ প্রকাশ করে, কারণ এই একটি পণ্যের দাম বাড়ায় সাধারণ মানুষকে কষ্ট পেতে হয় সবচেয়ে বেশি, যা গত কিছুদিনে আরো প্রকট হয়ে উঠেছে।

ক্যাবের সাধারণ সম্পাদক মো. হুমায়ন কবির ভূঁইয়া বলেন, ‘প্রত্যেক দিনই চালের দাম কিছু না কিছু বাড়ছে, বিশেষ করে মোটা চাল যেটা সাধারণ মানুষ বেশি ব্যবহার করে, তাদের ক্ষেত্রে এটা বেশি বাড়ছে। ব্যবসায়ীরা মনে করেছে নতুন সরকার আসবে, এই সুযোগে যদি আমরা সাতদিন দশদিন ব্যবসা করতে পারি, লাভবান হওয়া যাবে। এই অজুহাতে তারা এটা করেছে, তাছাড়া যৌক্তিক কোনো কারণ নাই।’

ক্যাব সভাপতি গোলাম রহমান বলেন, ‘যেই মূল্যবৃদ্ধি হচ্ছে, তা আমরা অযৌক্তিক মনে করি। সরকারের কাছে যদি পর্যাপ্ত পরিমাণ চাল থাকে তাহলে মূল্য সহসাই সহনীয় পর্যায়ে আসবে। আর না হলে যারা কারসাজি করেছে, তাদেরকে চিহ্ণিত করে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার উদ্যোগ নিতে হবে।’    

খাদ্য পণ্যের পর মানুষের দুশ্চিন্তা যে বাড়ি ভাড়া নিয়ে, সেখানেও দেখা যায় ২০১৮ সালে দুই রুমের বাড়ি ভাড়া বেড়েছে ৫ দশমিক ৫ শতাংশ। আর সেবা খাতে যে মূল্য বৃদ্ধি লক্ষ্য করা গেছে সেখানে চিকিৎসা ব্যয়ের বিশেষ ভূমিকা ছিল বলে মনে করছে ক্যাব।

তবে ক্যাবের রিপোর্টে স্বস্তিরদায়ক কিছু তথ্য পাওয়া যায়। পূর্ববর্তী বছরের তুলনায় ২০১৮ সালে দাম কমেছে বেশ কয়েকটি পন্যের। যার মধ্যে রয়েছে ডাল, লবণ, মসলা, চিনি, রসুন, কাঁচা মরিস, ঝিংগা, ঢেঁড়স ও লাল শাকসহ কিছু সবজি।


bdnewseveryday.com © 2017 - 2018